Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

কয়েকটি চ্যানেলের বিরুদ্ধে লোগো নকলের অভিযোগ

ঢাকা, ২৫ মার্চ: অনুষ্ঠানের পাশাপাশি এখন দেশীয় চ্যানেলগুলোর মধ্যে নানাক্ষেত্রে সৃজনশীলতার অভাব চোখে পড়ছে। নতুন পুরনো বেশ কয়েকটি চ্যানেলের লোগো দেখলে সবার কাছেই বিষয়টি স্পষ্ট হবে। দেশের বাইরের পাশাপাশি স্থানীয় চ্যানেলগুলো এখন লোগোর ক্ষেত্রে দেশীয় চ্যানেলগুলোর ডিজাইনকেও রেহাই দিচ্ছে না।

চলতি বছরের জানুয়ারিতে পূর্ণাঙ্গ সম্প্রচারে আসা চ্যানেল নাইনকে ঘিরেই এ বিতর্কের সূত্রপাত। চ্যানেল নাইন-এর লোগো পুরোপুরিভাবেই বন্ধ হয়ে যাওয়া চ্যানেল ওয়ান-এর কপি করা হয়েছে বলে অনেকেই অভিযোগ করেছেন। চ্যানেল ওয়ান-এর লোগো যেমনটি ছিল ঠিক সেভাবেই তৈরি হয়েছে নাইন-এর লোগো। পার্থক্য শুধু রঙের ক্ষেত্রে- এ মন্তব্য অভিযোগ যারা করছেন তাদের।
এদিকে, সম্প্রচারের শুরুতেই ওয়ানের বিরুদ্ধে লোগো অনুকরণের অভিযোগ তুলেছিলেন কেউ কেউ। রাশিয়ার ওয়ান চ্যানেল থেকে দেশীয় চ্যানেলটির লোগো অনুপ্রাণিত বলে অভিযোগ রয়েছে।
সরকারি আদেশে বন্ধ হয়ে যাওয়া যমুনা টেলিভিশনের লোগোর ছায়া রয়েছে এ কে আজাদের মালিকাধীন চ্যানেল টোয়েন্টিফোর-এর লোগোতে। বিশেষ করে যমুনার টোয়েন্টিফোর সেভেন-এর মতো করেই এর লোগোতে টোয়েন্টিফোর সংখ্যায় ডিজাইন করা হয়েছে। এমনকি যমুনার লোগোর ওপর যে বিশ্বাকৃতির মডেল রয়েছে অনেকটা সেভাবেই টোয়েন্টিফোর-এর বিশ্বাকৃতি দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে।
যমুনা টেলিভিশনের সাবেক এক কর্মী বার্তা২৪ ডটনেট-কে জানান, যমুনার গ্রাফিক্স ডিজাইন যে বিদেশী কোম্পানিটি করেছিল তাদের দিয়েই টোয়েন্টিফোর কাজ করাচ্ছে। যেহেতু যমুনা সম্প্রচারে আসেনি সে কারণে ওই কোম্পানি টোয়েন্টিফোর-কে এ ডিজাইনটি ধরিয়ে দিয়ে থাকতে পারে।
ওই কর্মী আরও বলেন, যমুনার নিউজের জন্য বিদেশী ওই কোম্পানিটি যে টাইটেল তৈরি করেছিল তার মতো করেই একটি টাইটেল ব্যবহার করছে  এখন পূর্ণাঙ্গ সম্প্রচারে থাকা একটি সংবাদ চ্যানেল। উল্লেখ্য, ওই টেলিভিশনের নিউজ টাইটেলটিও তৈরি করে দিয়েছে বিদেশী ওই কোম্পানি।
২০০৮ সালের ২৮ আগস্ট পূর্ণাঙ্গ সম্প্রচার শুরু করে দিগন্ত টেলিভিশন। এই চ্যানেলটির লোগোও ডিরেক্ট টেলিভিশনের লোগোর হুবহু কপি বলে অভিযোগ রয়েছে। রঙ থেকে আকার সবকিছুতেই চ্যানেলটির লোগোতে ডিরেক্ট-এর স্পষ্ট ছায়া রয়েছে।
এদিকে, সম্প্রচারের অপেক্ষায় থাকা এসএ টেলিভিশনের ক্ষেত্রেও একই অভিযোগ উঠেছে। বলা হচ্ছে চ্যানেলটির লোগোতে ইন্দোনেশিয়ার এসসিটিভির ছায়া রয়েছে।
বার্তা২৪/এসএফ
Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট