Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

আইএসআই সাবেক প্রধান এর জবানবন্দিতে বাংলাদেশ অথবা খালেদা জিয়ার নাম নেই

ঢাকা, ১৮ মার্চ: বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, আইএসআই’র সাবেক প্রধান আসাদ দুররানী আদালতে যে জবাববন্দি দিয়েছেন তাতে বাংলাদেশ অথবা খালেদা জিয়ার নাম নেই। তিনি দাবি করেন, সম্পূর্ণ মিথ্যা ও বানোয়াট এই ঘটনাটি সুপরিকল্পিতভাবে অপপ্রচার করা হচ্ছে। এর সঙ্গে কলকাতার সাংবাদিক দীপাঞ্জল রায় জড়িত যিনি খালিজ টাইমস ও প্রথম আলো পত্রিকার করেসপন্ডেন্ট।

রোববার দুপুরে নয়াপল্টন কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি একথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, আসাদ দুররানীর বক্তব্যে লেখা আছে গোলাম মোস্তফা জাতুই, জাম সাদিক, মোহাম্মদ খান, নওয়াজ শরীফকে টাকা দেয়া হয়েছে। এরা সবাই পাকিস্তানি। এখানে কোথাও বাংলাদেশ অথবা খালেদা জিয়ার নাম নেই। এটা রাজনৈতিকভাবে উদ্দেশ্য প্রণোদিত অপপ্রচার।’’

তিনি বলেন, ‘‘আমাদের নামে বস্তা বস্তা টাকা নিয়ে নির্বাচন করার অভিযোগ আসেনি। সেজন্য সুপরিকল্পিতভাবে এই মিথ্যা প্রচারণা চালানো হচ্ছে।’’

‘বিএনপি বেতন ভাতার জন্য সংসদে যাচ্ছে’ – আওয়ামী লীগ নেতাদের এমন বক্তব্যের জবাবে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘‘আওয়ামী লীগ যখন বিরোধীদলে ছিল তখন বেতন ভাতা ও সুযোগ সুবিধা নিয়ে তারাও সংসদে যায়নি। আমরা প্রথম থেকে সংসদে গিয়েছি। বিএনপি কখনোই ইচ্ছাকৃতভাবে সংসদ বর্জন করেনি। বরং তাদের আচরণের কারণেই সংসদ বর্জন করেছে।’’

তিনি বলেন, ‘‘আওয়ামী লীগের নেতারা যখন একথাগুলো বলেন তখন তারা নিজেদের চেহারা একবারও আয়নায় দেখেন না। আমরা তাদের চেয়ে অনেক সহনশীল রাজনীতি করছি। তারা ১৭৪ দিন হরতাল করেছিল।’’

হরতাল দিয়ে নেতাকর্মিরা অবরুদ্ধ থাকলেও সবগুলো হরতাল দেশের মানুষ স্বতস্ফূর্তভাবে পালন করেছে বলেও দাবি করেন তিনি।

সংসদে গিয়ে বিএনপির ভূমিকা কি হবে এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘‘আমরা জনগণের পক্ষে কথা বলবো। জনগণের অধিকারের কথা তুলে ধরবো।’’

সংসদে বিএনপি যদি তত্ত্ববধায়ক সরকারের কোনো ফর্মুলা দেয়, তা হাইকোর্টে পাঠানো হবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের এমন বক্তব্যের জবাবে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘‘বল এখন তাদের কোর্টে। আমরা বলে দিয়েছি নিরপেক্ষ নির্দলীয় সরকার ছাড়া কোনো নির্বাচনে যাবো না। এখন কিভাবে নির্দলীয় সরকার গঠন করবে সেটা তাদের ব্যাপার। সেটা কোর্টে গিয়ে অথবা সংসদে আইন পাস করবে কিনা তাও তারাই নির্ধারণ করবে।’’

বার্তা২৪/এমইচ/জিসা

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট