Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

খরা কাটলো না, ৬ রানে আউট শচীন


ঢাকা, ১৩ মার্চ: খরা কাটলো না। পারলেন না শচীন টেন্ডুলকার। দুর্দশা কাটছেই না তার।

মিরপুরে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মাত্র ৬ রানে আউট হয়েছেন ভারতের এই তারকা ব্যাটসম্যান।

গোটা ভারত থাকিয়েছিল শচীনের দিকে। তারা হতাশ হয়েছেন।

ইতিহাসের সবচেয়ে আলোচিত সেঞ্চুরি-খরা ক্ষণগণনার পালায় মঙ্গলবার ছুঁয়ে ফেলল এক বছর! গত বছর ১২ মার্চ বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ১১১। নেলসনে বাঁধা পড়ার পর ওই জালটা আর ছিঁড়তে পারেননি। হেলমেট খুলে দুই হাত ওপরে তুলে আকাশের দিকে তাকানো-ওই দৃশ্য দেখা যায়নি আর।

নাগপুরের ওই সেঞ্চুরিটির পর কিন্তু ভাবা যায়নি, পরবর্তী সেঞ্চুরির জন্য অপেক্ষার প্রহর এত দীর্ঘ হবে। শুরুতে কিছুদিন টেন্ডুলকার প্রতিবার ব্যাট করতে নামার সময়ই থাকত সেঞ্চুরির আশা, পরে হতাশা। এই চর্বিত চর্বণ চলেছে কিছুদিন আগে পর্যন্তও। এখন সেটাও হয় না।

টেন্ডুলকারের ক্যারিয়ার বলছে, বড় কোনো মাইলফলকের সামনে এর আগেও কয়েকবার কেটেছে প্রতীক্ষার এমন দীর্ঘ যন্ত্রণাময় প্রহর। এবারের আগে টেন্ডুলকারের সবচেয়ে আলোচিত সেঞ্চুরি-খরা ছিল ক্যারিয়ারের শুরুতে। সে সময় বিশ্ব ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় এক রহস্য ছিল টেন্ডুলকার কেন ওয়ানডে সেঞ্চুরি পাচ্ছেন না! বহুকাঙ্ক্ষিত সেই প্রথম ওয়ানডে সেঞ্চুরিটা পেয়েছিলেন অভিষেকের প্রায় পাঁচ বছর পর, ৭৯তম ওয়ানডেতে! ২০০৪ সালে ঢাকাতেই বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে টেস্ট সেঞ্চুরির সংখ্যায় ছুঁয়েছিলেন সুনীল গাভাস্কারকে। কিন্তু গাভাস্কারকে ছাড়াতে লেগে গিয়েছিল এক বছর! ২০০৮ সালের জুলাইয়ে শ্রীলঙ্কা সফরে গিয়েছিলেন ব্রায়ান লারার সর্বোচ্চ টেস্ট রানের রেকর্ড থেকে ১৭১ রান দূরে থেকে। কিন্তু অজন্তা মেন্ডিস রহস্যের জাল ছড়ানো সিরিজের ৩ টেস্টের ৬ ইনিংসে করতে পেরেছিলেন মাত্র ৯৫! পরের টেস্টে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ১৪। দ্বিতীয় ইনিংসে এগিয়ে যাচ্ছিলেন, কিন্তু ৮৯ রানে আউট হয়ে আটকে গেলেন মাত্র ১৪ রান দূরে। শেষ পর্যন্ত লারাকে ছাড়াতে পারলেন পরের টেস্টে মোহালিতে। ছোটখাটো আরও কিছু মাইলফলকের উদাহরণও টানা যায়। ইনিংসের হিসাবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তার দীর্ঘতম সেঞ্চুরি-খরা অবশ্য এটা নয়। ২০০৭ সালের জুন থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত ৩৪ ইনিংসে সেঞ্চুরি পাননি, এবার ৩২ ইনিংস!

তবে আলোচনা-আক্ষেপ-আশা-হতাশা আগের সবকিছুকে ছাড়িয়ে গেছে এবার। যতই বারবার বলুন, এটা স্রেফ একটা পরিসংখ্যান, শততম সেঞ্চুরিটা যে টেন্ডুলকারের কাঁধে
সিন্দাবাদের ভূত হয়ে চেপে বসেছে, গত কিছুদিন তার ব্যাটিংয়েও প্রমাণ মিলছে এর। অনেকের ধারণা, বিশ্বকাপের পর থেকে বেছে বেছে ওয়ানডে খেলার পরও এশিয়া কাপে এসেছেন স্রেফ এই ভূতটাকে নামাতেই।

কিন্তু আজকেও সেই ভূতটাও নামলো না।

বার্তা২৪/এসএফ

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট