Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

পদ্মা সেতুর অর্থায়ন নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি

স্টাফ রিপোর্টার: পদ্মা সেতু অর্থায়ন নিয়ে এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি একথা উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত বলেছেন, পদ্মা সেতু বিশ্বব্যাংকসহ দাতা সংস্থাগুলোর ঋণ সহায়তায় নাকি পিপিপি ভিত্তিতে হবে তা এখনও সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি। তবে সব কিছু বিকল্প বিবেচনায় রয়েছে। যদিও পদ্মা সেতু নির্মাণে ২১শে ফেব্রুয়ারি মালয়েশিয়ার সঙ্গে সমঝোতা চুক্তি হওয়ার কথা গত কয়েক দিন ধরেই মিডিয়াতে বলে আসছেন যোগাযোগ মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। গতকাল সচিবালয়ে সাবিনকো’র চেয়ারম্যান অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করেন। বৈঠকের পর সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী এ কথা বলেন। মালয়েশিয়া সরকারি-বেসরকারি অংশীদারিত্বে (পিপিপি) পদ্মা সেতু নির্মাণে আগ্রহ দেখিয়েছে উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, যদি পিপিপিতে যাবো বলে মনে করি- তাহলে এর আগে যাদের সঙ্গে চুক্তি হয়েছে তা প্রত্যাহার করতে হবে। বিশ্বব্যাংকের সঙ্গে পদ্মা সেতু নিয়ে কথাবার্তা এখনও শেষ হয়নি। তারা ঋণের কার্যকারিতার মেয়াদ ছয় মাস বাড়িয়েছে। সেটা আমাদের কাছে খুব একটা গ্রহণযোগ্য নয়। গ্রহণযোগ্য না হওয়ার ব্যাখ্যায় তিনি বলেন, এখন আমাদের কতগুলো কাজ করতে হবে। পদ্মা সেতুতে নতুন উপায়ে অর্থায়ন করা হলে বিশ্বব্যাংকসহ চারটি সংস্থার কাছে বলা হবে- তোমরা কিভাবে কি করতে পারো। দুটি উপায় আছে- একটা সরাসরি ঋণ, অন্যটি পিপিপি। তবে পিপিপি খুব ব্যয়বহুল। এটি যেহেতু বড় প্রকল্প, আমরা চাইবো আরও বিনিয়োগকারীকে নিয়ে সরাসরি করা যায় কিনা। মালয়েশিয়ার বিনিয়োগ বিষয়টি সম্পূর্ণ ভিন্ন উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী বলেন, এটা পিপিপি’র অফার। আমি এটা জানি না। এটা ওরা (যোগাযোগ মন্ত্রণালয়) জানে। পদ্মা সেতুতে নতুন অর্থায়ন নিয়ে সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে হলে আগে চুক্তি হওয়া বিশ্বব্যাংকসহ অন্য দাতা সংস্থাগুলোর সঙ্গে আলোচনা করা হবে বলেও উল্লেখ করেন অর্থমন্ত্রী। উল্লেখ্য, ছয় দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ পদ্মা সেতু প্রকল্পে বিশ্বব্যাংক ২৯০ কোটি ডলার, এডিবি ৬১ কোটি, জাইকা ৪০ কোটি এবং ইসলামী উন্নয়ন ব্যাংক ১৪ কোটি ডলার ঋণ দেয়ার কথা রয়েছে। বাকি অর্থের যোগান দেবে সরকার। দুর্নীতির অভিযোগ তুলে বিশ্বব্যাংক তাদের অর্থায়ন স্থগিত করে। বিশ্বব্যাংকের এ অভিযোগের তদন্ত করে দুর্নীতি দমন কমিশন বলেছে, পদ্মা সেতু নির্মাণের জন্য প্রাক-যোগ্যতা নির্ধারণী প্রক্রিয়ায় অভিযোগের কোন সত্যতা পাওয়া যায়নি। দুদকের তদন্তে সাবেক যোগাযোগমন্ত্রী আবুল হোসেনের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের সত্যতা পাওয়া যায়নি। বিশ্বব্যাংক দুর্নীতির অভিযোগ তুলে ওই অর্থায়ন স্থগিত করার পর মালয়েশিয়া এ সেতু নির্মাণে আগ্রহ দেখায়। এর আগে গত মাসের শেষের দিকে মালয়েশিয়া সরকারের বিশেষ দূত এইচ ই দাতো সেরি এস সামি ভেলি’র নেতৃত্বে সাত সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল প্রধানমন্ত্রী ও যোগাযোগমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে পদ্মা সেতু নির্মাণে আগ্রহ প্রকাশ করেন। এ বিষয়ে আগামী ২১শে ফেব্রুয়ারি মালয়েশিয়ার সঙ্গে সমঝোতা চুক্তি হওয়ার কথা রয়েছে।

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট


6 Responses to পদ্মা সেতুর অর্থায়ন নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি

  1. mainul

    February 15, 2012 at 11:36 pm

    its bad 4 us if we failed to negotiate to world bank.

  2. sikiş izle

    March 13, 2012 at 1:41 am

    you’re seriously quantity a person admin your blogging is amazing i constantly examine your blog i am confident you might be the top

  3. Genclik Platformu

    March 14, 2012 at 3:46 am

    Wonderful post admin! i bookmarked your web website. i will glance ahead in case you may have an e-mail list including.

  4. escort ilanlari

    March 14, 2012 at 4:40 am

    Great article admin thank you. I identified what i was searching for here. I will review complete of posts with this time of day

  5. su arıtma cihazı

    March 14, 2012 at 10:55 am

    hey admin thanks for good and uncomplicated understandable submit i beloved your website web page really significantly bookmarked also

  6. smackdown oyunları

    March 14, 2012 at 2:23 pm

    I was searching for this wonderful sharing admin considerably thanks and also have nice blogging bye