Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

এপ্রিলের মধ্যেই বিশ্বব্যাংক অর্থায়ন করবে : যোগাযোগমন্ত্রী

 সিলেট, ১৯ জানুয়ারি : এপ্রিলের মধ্যে যেভাবেই হোক বিশ্বব্যাংক অর্থায়ন করবে। এ নিয়ে জনগণ কোনো কথা শুনতে চায় না। কারণ জনগণ বিরক্ত হয়ে গেছে বলে জানান যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।  শনিবার সকালে সিলেটের সুরমা নদীর ওপর কাজিরবাজার সেতুর নির্মাণ কাজ পরিদর্শনকালে সাংবাদিকদেরকে তিনি এসব কথা বলেন। সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী আরো বলেন, পদ্মাসেতুর বিকল্প অর্থায়নের ব্যবস্থা রয়েছে। তবে আপাতত কৌশলগত কারণে তিনি তা বলছেন না। তবে এপ্রিলের মধ্যে এর অর্থায়ন সম্ভব হবে। আগামী মাসের মধ্যেই বুঝা যাবে কে পদ্মা সেতুর অর্থায়ন করবে। এ সময়ের মধ্যে পদ্মা সেতুর অর্থায়ন নিয়ে জটিলতা কেটে যাবে বলেও আশাবাদ ব্যক্ত করেন মন্ত্রী।

এ সময় যোগাযোগমন্ত্রী বলেন, পদ্মা সেতুর দৃশ্যমান কাজ দেখাতে বর্তমান সরকারের মেয়াদেই এর নির্মাণ কাজ শুরু হবে। অক্টোবরের মধ্যেই সেতুর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন প্রধানমন্ত্রী। এ লক্ষ্যেই সরকার কাজ করছে। এছাড়া চলতি বছরের অক্টোবরের মধ্যে কাজিরবাজার সেতুর নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করতে সংশ্লিষ্টদেরকে কঠোর নিদের্শ দেন। কারণ অক্টোবরে সিলেটে কাজিরবাজার সেতু ও সিলেট-সুনামগঞ্জ সড়কের সুনামগঞ্জ সেতু উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এজন্য অক্টোবরের মধ্যেই কাজ শেষ হবে।

প্রসঙ্গত, ঘুষ লেনদেনের অভিযোগ ওঠার পর গত বছরের সেপ্টেম্বরে ২৯১ কোটি ডলারের পদ্মা সেতু প্রকল্পে ১২০ কোটি ডলারের ঋণচুক্তি স্থগিত করে বিশ্বব্যাংক। দুদক এরপর তদন্ত শুরু করলেও সরকারের সঙ্গে মতভেদ না কাটায় গত জুন মাসে সংস্থাটি ঋণচুক্তি বাতিল করে। এরপর সরকারের নানামুখী ততপরতায় তারা সিদ্ধান্ত বদলায়। তাদের দেয়া শর্ত অনুযায়ী আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের সাবেক প্রসিকিউটর লুইস গাব্রিয়েল মোরেনো ওকাম্পোর নেতৃত্বে তিন সদস্যের একটি প্যানেল দুদকের তদন্ত পর্যবেক্ষণে দুই দফা ঢাকা সফর করে। তবে সাবেক দুই মন্ত্রীকে আসামি করা না করা নিয়ে দর কষাকষির মধ্যে ঢাকা ছাড়ে তদন্ত প্রতিনিধি দল। সবশেষ বৃহস্পতিবার অর্থমন্ত্রী জানিয়েছেন, বিশ্বব্যাংক এ প্রকল্পে অর্থায়ন করবে কি না সরকার এ মাসেই তা জানতে চায়।