Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

বাংলাদেশ দিন দিন উন্নতি করছে: স্যামি

ঢাকা: ৩৭ দিনের সফর শেষে এবার ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের বাড়ি ফেলার পালা। আর যাবার আগে টি২০ ম্যাচে ১৮ রানের জয় তুলে কিছুটা হরেও সান্তনা পেয়েছে অতিলি দল। যা তারা ওডিআই সিরিজে হারিয়েছে। এর সঙ্গে টি২০ বিশ্ব সেরা হবার কারণে তাদের সম্মানেরও একটি বিষয় জড়িত ছিল।

মিরপুরে আজ ১৮রানে জয়ের পর আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে অধিনায়ক ড্যারেন সামি বললেন, “বাংলাদেশ দিন দিনই উন্নতির দিকে যাচ্ছে। এর আগের যে বাংলাদেশকে আমরা মোবাবেলা করেছি এবারের দলটি আরো বেশি সুসংগঠিত। তাদের নতুন কোচ সম্ভবত দলটিকে ঐক্যবদ্ধ ভাবে খেলতে শিখিয়েছে। এ জন্য আমি তাদের ধন্যবাদ জানাই। বিশেষ করে একদিনের ম্যাচে তাদের উন্নতি চোখে পড়ার মতো।”

সফরের একমাত্র টি২০ ম্যাচটি ১৮ রানে জয়ের পর তিনি আরো বলেন, “প্রতিটি ম্যাচেই বাংলাদেশের খেলোয়াড়রা পরিকল্পনার ছাপ রেখেছে। বিশেষ করে গেইল সহ আমাদের ব্যাটসম্যানদের তারা ভালোভাবেই মোকাবেলা করেছে। যা চোখে পড়ার মতো। আমরা জানতাম তারা (বাংলাদেশ) লড়াই অব্যাহত রাখবে। তারা ব্যাটিংয়েও ভাল করেছে। তবে শেষ মুহুর্তে গিয়ে আমরা তাদের আটেক দিতে সক্ষম হয়েছি। এই সিরিজে গেইল আমাদের হয়ে ভাল বল করেছে। শুধু মাত্র আজকে নয় স্যামুয়েলস ও রোজও সব সময় ভালো বল করেন।”

তিনি বলেন, আমি শুরুতেই বলেছি যে বাংলাদেশকে আমরা হাল্কাভাবে নিচ্ছি না। কারণ জানতাম নিজেদের মাটিতে তারা দারুন ভাবে লড়বে। অপেক্ষাকৃত কম অভিজ্ঞতা সম্পন্ন খেলোয়াড়দের নিয়ে তারা যেভাবে আমাদের মোকাবেলা করেছে সেটি আমার স্মরণ থাকবে। এই সিরিজটি এক অর্থে ভালোই কেটেছে। তবে ওডিআই সিরিজটি হেরে যাওয়ায় আমি কিছুটা হতাশ। আশাকরি আগামীতে ভুলগুলো সংশোধন করে আমরা পুনরায় লড়াইয়ে ফিরে আসব।”

গেইলের পারফর্মেন্সে আবারো হতাশ কিনা জানতে চাইলে স্যামী জবাবে বলেন, “তিনি একজন বিশ্বমানের তারকা। সবার জীবনেই খারাপ সময় আসতে পারে। তবে এটি কোনভাবেই স্থায়ী নয়। আশা করি গেইল অচিরেই স্বমুর্তিতে ফিরে আসবেন।”

বাংলাদেশের সমর্থকদেরও প্রশংসা করেন সফরকারী দলে অধিনায়ক। তিনি বলেন, “দর্শকরা নিজ দলকে সমর্থন দেয়ার পাশাপাশি আমাদেরকে সমর্থন দিয়েছে। আমরা তাদের সমর্থন দারুন ভাবে উপভোগ করেছি। তারা খুবই সামজিক।”

অপর এক প্রশ্নের জবাবে ক্যারিবীয় অধিনায়ক বলেন, “আমাদের প্রত্যাশা ছিল ভাল একটি মনোভাব নিয়েই বছরটি শেষ করতে পারব। একমাত্র টি২০ ম্যাচটিতে সেরার পুরস্কার পাওয়া স্যামুয়েলসের ইনিংসটি আমাকে বিশ্বকাপের ফাইনাল ম্যাচের ইনিংসটি মনে করিয়ে দিয়েছে। এখন বাড়ি ফেরার প্রহর গুনছি। অপেক্ষায় আছি স্ত্রী-সন্তানদের সঙ্গ লাভের। আশা করি পরিবারের সবাইকে নিয়ে মজা করে ক্রিসমাস পালন করতে পারব।”

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট