Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

ব্যাপক কারচুপির অভিযোগ : বিএমএ নির্বাচন প্রত্যাখান ড্যাবের, বিজয় দাবি স্বাচিপের

 ব্যাপক কারচুপির অভিযোগ এনে দেশের চিকিতসকদের নীতি-নির্ধারণী সংগঠন বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমএ) নির্বাচন প্রত্যাখান করলো বিএনপিপন্থী চিকিতসক সংগঠন ডক্টরস এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ড্যাব)। তবে বিজয় দাবি করেছে আওয়ামী পন্থী স্বাধীনতা চিকিতসক পরিষদ (স্বাচিপ)।
এদিকে নির্বাচনের ভোট গ্রহণে অনিয়ম থাকায় ফল প্রকাশ করতে পারছে না নির্বাচন কমিশন। সূত্র জানায় ভোট গ্রহণ আর গণনায় মিল পাওয়া যাচ্ছে না। সুতরাং সহজেই আর ফল প্রকাশ করা সম্ভব হচ্ছে না।
মহাসচিব প্রার্থী ডা. জাহিদ বলেন, অনেক কেন্দ্রের হিসেব স্বাচিপ নিজেও দিতে পারছেনা। ভোটারের চেয়ে ভোট গণনার সংখ্যা বেশি দেখা যাচ্ছে। এ নির্বাচন আমরা প্রত্যাখান করছি।
জাহিদ বলেন, ঢাকা কেন্দ্রে উনারা বলছেন ৮ হাজার ১২০ টি ভোট গ্রহণ হয়েছে। সে হিসেবে ব্যালট হওয়ার কথা ১৬ হাজার ২৪০ টি। কিন্তু গুনে দেখা যায় ব্যালটের সংখ্যা ১৬ হাজার ৫৪১টি। এই ৩০১টি ব্যালট কমাতে গেলে ভোট গ্রহণের সংখ্যা হবে সাড়ে ৭ হাজার।
এছাড়াও নির্বাচনে সারাদেশের অনিয়ম সর্ম্পকে তিনি বলেন, ময়মনসিংহে কেন্দ্র থেকে এজেন্টকে বের করে দেয়া হয়েছে। প্রার্থীরা সংবাদ সম্মেলন করে কেন্দ্র বাতিলের দাবি করেছে, কিন্তু নির্বাচন কমিশন তা শোনেনি।
এছাড়াও রংপুরে ভোট ছিনতাই হয়েছে। পোলিং এজেন্টকে মারধর করা হয়েছে।
শরীয়তপুর, ভোলা, রাজবাড়ি, পিরোজপুর. ঝালকাঠিতেও কারচুপি হয়েছে ব্যাপক হারে। আমাদের ভোটারদের হুমকি দেয়া হয়েছে। ভোটাররা কেন্দ্রে যেয়ে দেখেন তাদের ভোট আগেই দেয়া হয়ে গেছে।
ঢাকা কেন্দ্রে বিএমএ ভবনের মিলনায়তনে নিজেদের ভোটার ঢুকিয়ে নির্দিষ্ট সময়ের পর বিকেল ৫টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ করেছেন তারা।
অনিয়মের কারণে চট্টগ্রাম কেন্দ্রের ফলও ঘোষণা করতে পারছে না কমিশন।
স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সাবেক মহাপরিচালক আব্দুর রহমানকে প্রধান করে যে নির্বাচন কমিশনের অধীনে নির্বাচন হয়েছে, সেটিকে নতজানু উল্লেখ করে নতুন নির্বাচনের দাবি জানান তিনি।
এদিকে জয়ের পথে রয়েছেন বলে দাবি করেছেন, সরকারদলীয় চিকিতসক সংগঠন স্বাধীনতা চিকিতসক পরিষদ (স্বাচিপ) প্যানেল ডা. মাহমুদ হাসান-ইকবাল আর্সনাল পরিষদ।
বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা থেকে রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় নির্ধারিত কেন্দ্রগুলোতে ভোটগ্রহণ শুরু হয়ে শেষ হয় বিকেল ৫টায়। তবে ঢাকা কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ চলে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত।
স্বাচিপের অধ্যাপক ডা. মাহমুদ হাসান-অধ্যাপক ডা. ইকবাল আর্সলান পরিষদের উল্লেখযোগ্য প্রার্থীরা হলেন, সহ-সভাপতি (ঢাকা মহানগর) ডা. মো. আবদুর রউফ সরদার, সহ-সভাপতি (ঢাকা বিভাগ) ডা. কামরুল হাসান খান, কোষাধ্যক্ষ ডা. এহসানুল কবির জগলুল, যুগ্ম-মহাসচিব ডা. মো. আব্দুল আজিজ, সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. উত্তম বড়ুয়া, বিজ্ঞান বিষয়ক সম্পাদক ডা. মো. কামরুল হাসান মিলন, দফতর সম্পাদক ডা. চিত্ত রঞ্জন দাস প্রমূখ।
ড্যাবের ডা. আজিজ-ডা. জাহিদ পরিষদ থেকে নির্বাচনে অংশ নেওয়া অন্যান্য প্রার্থীদের মধ্যে ছিলেন, কোষাধ্যক্ষ্য পদে ডা. মোস্তফা রহিম পন, যুগ্ম মহাসচিব পদে ডা. এস এম রফিকুল ইসলাম বাচ্চু, সাংগঠনিক সম্পাদক পদে ডা. আব্দুল ওহাব প্রমূখ।

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট