Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

ইংল্যান্ডকে হারালো ওয়েস্ট ইন্ডিজ

 টার্গেটটা যে ইংল্যন্ডের জন্য আহামরি কঠিন ছিল না তা প্রমাণ করেছেন ইয়ন মরগান। কিস্তু শুরুর ধাক্কাটা শেষ পর্যন্ত সামলে উঠতে না পারায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে হার দিয়েই তাদের  সুপার এইট শুরু করতে হলো। বৃহস্পতিবার পাল্লেকেলেতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ১৭৯/৫ এর জবাবে ইংল্যান্ড ৪ উইকেটে ১৬৪ রান করতে পারে। প্রথম ওভারেই রবি রামপাল ইংল্যান্ডের দুটি ডানা ভেঙ্গে দেন। দুই মারমুখী ব্যাটসম্যান কিসওয়েটার ও লুক রাইট  শূন্য রানে বিদায় নিলে দারুণ চাপে পড়ে ইংলিশরা। ফলে তৃতীয় উইকেটে অ্যালেক্স হেলস ও বেয়ারস্টো ধীরে খেলতে বাধ্য হন। ১০ম ওভারের শেষ বলে রেয়ারস্টো যখন আউট হন তখন ইংল্যান্ডের স্কোর মাত্র ৫৫/৩। এ অবস্থায় জযের স্বপ্ন অবাস্তবই। কিন্তু চতুর্থ উইকেটে হেলসকে সঙ্গে নিয়ে মরগান স্বপ্নকে প্রায় বাস্তবে রূপ দিয়ে ফেলেছিলেন। এ জুটি প্রতি বলে দুইয়ের বেশি রান নিয়ে লক্ষ্যকে নাগালের মধ্যে নিয়ে আসেন। ৯.৩ ওভারে এ জুটি ১০৭ রান যোগ করেন। মরগান ৩৬ বলে ৭১ রান করে অপরাজিত থাকে । হেলস ৬৯ রান করে আউট হন । তিনি ৫১ বলে এ রান করতে ২টি ছক্কা ও ৫টি চার মারেন। আর ২৫ বলে ফিপটি করা মরগান হাঁকান ৫টি ছক্কা ও চারটি চার। টি-টোয়েন্টিতে চতুর্থ উইকেটে রেকর্ড গড়েন তারা। এর আগে টসে জিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ব্যাট করতে নেমে বড় ভিত পায় চার্লস ও গেইলের দৃঢ় ব্যাটিংয়ের সুবাদে। তাদের শুরুটা ছিল উল্টো। ওপেনিং জুটিই শ’রান পার করে নেয়। ১১তম ওভারের শেষ বলে গেইল আউট হন দলীয় ১০৩ রানে মাথায়। তিনি ৫৮ রান করেন ৩৫ বলে, ছক্কা ৪টি ও চার ৬টি। আর চার্লস আউট হন ৮৪ রান করে। তিনি ৫৬ বলে ১০টি চার আর ৩টি ছক্কা মারেন। তবে পরের দিকের কেউ বেশিক্ষণ থাকতে না পারায় ১৭৯ রানেই থেমে যায় তাদের ইনিংস। ম্যাচ সেরা হন চার্লস।

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট