Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

পদত্যাগের দাবি নাকচ করলেন বুয়েট ভিসি

পদত্যাগের দাবি নাকচ করে দিয়েছেন বুয়েটের উপাচার্য ড. এস এম নজরুল ইসলাম। বৃহস্পতিবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ ঘোষণা দিয়েছেন।  এদিকে উপাচার্য ও উপ-উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে বৃহস্পতিবারও বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) শিক্ষক, শিক্ষার্থীদের অবস্থান ধর্মঘট অব্যাহত রয়েছে। উপাচার্য ও উপ-উপাচার্যের পদত্যাগ না করা পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাবেন বলে জানিয়েছেন আন্দোলনকারীরা।

বুধবার রাতে বুয়েটের সিন্ডিকেটের জরুরি বৈঠকে উপাচার্য ও উপ-উপাচার্যের অনিয়ম তদন্তে বিচার বিভাগীয় তদন্ত কমিটি গঠনের সুপারিশ করা হয়।

এদিকে বৈঠক শেষে উপাচার্য ড. এস এম নজরুল ইসলাম জানান, সরকারের নির্দেশেই তিনি পদত্যাগ করবেন।

এর আগে বুধবার সকাল থেকে উপাচার্যের অফিসের সামনে অবস্থান নেন শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও কর্মচারীরা। দুপুরে বুয়েট শিক্ষক সমিতির নেতৃত্বে বুয়েট ক্যাম্পাসে একটি মৌন মিছিল বের করা হয়। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের কাউন্সিল ভবনের সামনে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে ধর্মঘটের ঘোষণা দেন শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক মোঃ মুজিবুর রহমান।

বিকালে আন্দোলনের সঙ্গে সংহতি জানিয়ে বুয়েটের সব কয়টি অনুষদ, বিভাগ এবং ইনস্টিটিউটের প্রধানরা পদত্যাগ করেন। তাদের মধ্যে ৫ জন নির্বাচিত ডিন, ৩ জন ইনস্টিটিউট পরিচালক এবং ১৫ জন বিভাগীয় প্রধান রয়েছেন।

এর আগে মঙ্গলবার রাতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ১১ জুলাই থেকে ২৪ আগস্ট পর্যন্ত বুয়েট বন্ধ ঘোষণা করে। এরপর থেকেই ক্যাম্পাসে ব্যাপক পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

কিন্তু এর আগেই উপাচার্য ও উপ-উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে আগামী ১৪ জুলাই থেকে লাগাতার কর্মবিরতিতে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছিলেন শিক্ষক সমিতির নেতারা।

উল্লেখ্য, উপাচার্য ও উপ-উপাচার্যের পদত্যাগসহ ১৬ দফা দাবিতে গত ৭ এপ্রিল থেকে আন্দোলন করছে বুয়েট শিক্ষক সমিতি। প্রায় এক মাস কর্মবিরতি পালনের পর গত ৪ মে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপে শিক্ষকরা ক্লাসে ফিরে যান। এরপর একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। আর কমিটি একটি রিপোর্ট দিলে শিক্ষকরা তা গ্রহণ না করে ফের আন্দোলনের ঘোষণা দেন।

এর অংশ হিসেবে বুধবার সকাল থেকেই শিক্ষকরা উপাচার্যের অফিসের সামনে অবস্থান নেন। আর তাদের সঙ্গে যোগ দেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা এবং কর্মচারীরাও।

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট