Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

একুশের গ্রন্থমেলা দ্বিতীয় দিনও অগোছালো

স্টাফ রিপোর্টার: অমর একুশের গ্রন্থমেলার দ্বিতীয় দিনও কেটেছে অগোছালোভাবে। শেষ হয়নি প্রস্তুতি, স্টল সাজানোর কাজ। মাঝারি ও ছোট ছোট বেশকিছু প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান একাডেমী চত্বরে স্টল সাজিয়ে বসলেও এখনও আসেনি তাদের নতুন কোন বই। দু’দিন পার হলেও হ-য-ব-র-ল দেখা গেছে তথ্য কেন্দ্র। চালু হয়নি মিডিয়া সেন্টার। তবে দ্বিতীয় দিন মেলার পরিবেশ ছিল প্রথম দিনের চেয়ে অনেক ভাল। শুরুর দিনে দর্শনার্থী সংখ্যা কম থাকলেও দ্বিতীয় দিনে তা বেড়েছে। গতকাল মেলায় নতুন বই এসেছে ৪২টি। বেশ কয়েকটি বইয়ের মোড়ক খোলা হয় নজরুল মঞ্চে। শুরুর সময় হওয়ায় এখনও তেমনভাবে বেচাকেনা শুরু হয়নি। প্রকাশকরা জানালেন মেলায় ক্রেতার চেয়ে দর্শনার্থী বেশি। তারা নতুন বই হাতে নিয়ে দেখে চলে যাচ্ছেন। সূচীপত্রের সাঈদ বারী বলেন, দর্শকরা এখনও কিনতে শুরু করেননি। তারা ঘুরে ঘুরে দেখছেন। ছুটির দিনে বেচাকেনা বাড়বে বলে জানান তিনি। রায়ের বাগ থেকে আসা ড্যাফোডিল ইউনিভার্সিটির ছাত্র বাদল মীর্জা বলেন, মেলায় দেখতে এসেছি কি কি বই এসেছে।
ঠুকঠাক এখনও চলছে: মেলার ভেতরে ও বাইরে ঠুকঠাক এখনও চলছে। মেলা চত্বরে ঢুকতেই হাতুড়ির শব্দ কানে এসে লাগে। বাংলা একাডেমীর উপ-পিরিচালক মুর্শিদ আনোয়ার গতকাল বলেন, আগামীকালের (আজকের) মধ্যে  এসব সমস্যা কেটে যাবে। মেলার সার্বিক অবস্থা নিয়ে একাডেমী কর্তৃপক্ষ সন্তুষ্টির কথা জানিয়ে তিনি বলেন, প্রথম দু-একদিন যে সমস্যাটা থাকে পরে গিয়ে তা আর থাকে না। এদিকে দ্বিতীয় দিনের শেষ বেলায় এসে তথ্য কেন্দ্র খোলা হলেও তাদের কাছে ছিল না মেলা নিয়ে কোন তথ্য। আগত দর্শনার্থীদের কোন স্টলের অবস্থান কোন দিকে বলতে পারছিলেন না। নজরুল মঞ্চে কখন কার বইয়ের মোড়ক খোলা হবে, মূল মঞ্চে কখন কোন্‌ বিষয়ে আলোচনা হবে এসব বিষয়েও সঠিক তথ্য পাওয়া যায় সেখান থেকে। মেলার দ্বিতীয় দিনেও মিডিয়া সেন্টার চালু হয়নি। মেলার ইভেন্ট সাজানোর দায়িত্ব পাওয়া প্রতিষ্ঠান আপন গ্রুপের পরিচালক রুহুল আমিন ভূঁইয়া আরিফ বলেন, মিডিয়া সেন্টানের সব কাজ শেষ। শুক্রবার থেকে সাংবাদিকরা মিডিয়া সেন্টার ব্যবহার করতে পারবেন।
মোড়ক খোলার জন্য টাকা: বাংলা একাডেমী এবার প্রতিটি বইয়ের মোড়ক খোলার জন্য ৫০০ টাকা করে নিচ্ছে। কোন বইয়ের মোড়ক খুলতে চাইলে অন্তত একদিন আগে ৫০০ টাকা দিয়ে নাম জমা দিতে হবে। একটি বইয়ের মোড়ক খোলার জন্য ২০ মিনিট সময় পাবেন প্রত্যেকে। এ বিষয়ে বাংলা একাডেমীর উপ-পরিচালক মুর্শিদ আনোয়ার বলেন, একাডেমী তার নিজস্ব আয়ের চিন্তা করে এ বছর নতুন এ পদ্ধতি চালু করেছে। মোড়ক খোলা থেকে আয়কৃত টাকা একাডেমীর কল্যাণে ব্যয় করা হবে।
নতুন বই: মেলার ২য় দিনে প্রকাশিত হয়েছে ৪২টি নতুন বই। গল্প, উপন্যাস, প্রবন্ধ, কবিতা, নাটক, শিশুসাহিত্য, গবেষণা, রাজনীতি, ইতিহাস ইত্যাদি বিষয়ের উপর  লেখা এসব বই প্রকাশিত হয়েছে বিভিন্ন প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান থেকে। নতুন আসা বইগুলোর মধ্যে বিদ্যা প্রকাশ থেকে এসেছে মোহিত কামালের উপন্যাস অহনা, গল্পগ্রন্থ পৃথিবী কে কাহার, মঞ্জু সরকারে ঝুঁকিপূর্ণ ভ্রমণে প্রমোদ সঙ্গী। অন্য প্রকাশ থেকে এসেছে ইমদাদুল হক মিলনের একা, রাবেয়া খাতুনের দারুচিনি দ্বীপে, হাসানাত আবদুল হাইয়ের শেষের কবিতা। ইত্যাদি গ্রন্থ প্রকাশ এনেছে সালেক খোকনের লেখা সাংস্কৃতিক বৈচিত্রে আদিবাসী। জাগৃতি থেকে এসেছে বদরুদ্দীন উমরের লেখা সাম্রাজ্যবাদের পতনের মুখে সমাজতন্ত্রের পদধ্বনি, সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর রাষ্ট্র ও সংস্কৃতি।

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট


4 Responses to একুশের গ্রন্থমেলা দ্বিতীয় দিনও অগোছালো

  1. sikiş izle

    March 13, 2012 at 7:20 am

    I used to be looking for this wonderful sharing admin very much thanks and also have great running a blog bye

  2. escort ilanlari

    March 14, 2012 at 5:14 am

    Wonderful put up admin! i bookmarked your world-wide-web webpage. i will seem forward if you will have an e-mail listing adding.

  3. sikvar

    March 14, 2012 at 6:20 am

    i bookmarked you in my browser admin thank you so much i will probably be looking for your next posts

  4. smackdown oyunları

    March 14, 2012 at 2:59 pm

    Hello admin great submit very much thanks liked this weblog really a lot