Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

পদ্মাসেতু দুর্নীতিতে কানাডায় বিচার হচ্ছে এসএনসি-লাভালিনের সাবেক দু’কর্মকর্তার

পদ্মা সতু প্রকল্পে দুর্নীতির দায়ে এসএনসি-লাভালিনের সাবেক দুই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়েছে কানাডায়। আগামীকাল সোমবার তাদেরকে টরোন্টোর আদালতে হাজির করা হবে। ফরেন পাবলিক অফিসিয়াল অ্যাক্টের অধীনে দুর্নীতির অভিযোগ গঠন করা হয়েছে তাদের বিরুদ্ধে। ওই দুই কর্মকর্তা হলেন রমেশ শাহ (৬১) ও মোহাম্মদ ইসমাইল (৪৮)। তবে তারা বাংলাদেশী কিনা তা বলা হয়নি রিপোর্টে। এ খবর দিয়েছে দ্য কানাডিয়ান প্রেস। এতে আরও বলা হয়েছে, তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে গত ২০শে ফেব্র“য়ারি। অভিযোগ গঠন করা হয়েছে এর পরের মাস এপ্রিলে। তারপর থেকে তাদেরকে বেশ কয়েক বার আদালতে হাজির করা হয়েছে। তবে অভিযোগ গঠন করা হলেও এর আগে কেন পুলিশ এ বিষয়টি প্রকাশ করেনি তা জানা যায় নি। তাদের বিরুদ্ধে যে আইনে অভিযোগ গঠন করা হয়েছে তাতে কোন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে সরাসরি বা পরোক্ষভাবে কোন লোভনীয় প্রস্তাব বা ঋণ, পুরস্কার দেয়া বা বিদেশী সরকারি তহবিল দেয়ার বিষয়ে প্রস্তাব দেয়ার বিষয় থাকলে তাতে বিচারের কথা রয়েছে। এর অধীনে কোন কর্মকর্তা তার ক্ষমতাকে পুজি করে বিদেশী কোন রাষ্ট্রে বা আন্তর্জাতিক কোন সংস্থায় সহায়তা দেয়ার সিদ্ধান্ত নিতে পারেন না। এ অপরাধে আইন অনুযায়ী অভিযুক্তদের ৫ বছরের জেল হতে পারে। পরে তাদেরকে স্বদেশে ফেরত পাঠানো হতে পারে। তবে তারা কি ধরনের অপরাধ করেছেন তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায় নি। গত সেপ্টেম্বরে বিশ্বব্যাংকের অনুরোধে এসএনসি-লাভালিনের ওকভিলের অফিস ঘেরাও করে সেখানে অভিযান চালায় পুলিশ। বিশ্বব্যাংক এই সেতুতে চুক্তির বিষয়ে তদন্ত করছে। ওই চুক্তি অনুযায়ী এখনও দক্ষিণ এশিয়ার দেশ বাংলাদেশকে অর্থ দেয়া হয়নি। এ প্রকল্পের জন্য ১২০০ কোটি ডলারের ঋণ বিশ্বব্যাংক স্থগিত করে দুর্নীতির অভিযোগে।

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট