Widgetized Section

Go to Admin » Appearance » Widgets » and move Gabfire Widget: Social into that MastheadOverlay zone

‘নজরুলের চেতনা আমাদের দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ করে’

ঢাকা, ২৫ মে: জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১১৩তম জন্মজয়ন্তীতে শুক্রবার সকালে তার মাজারে পুষ্পস্তবক অর্পণের মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে দিনের কর্মসূচি।

সকালে কবির মাজারে মন্ত্রী আবুল কালাম আজাদের নেতৃত্বে তথ্য ও সংস্কৃতি মন্ত্রণালয় পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।

এরপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচাযের্র নেতৃত্বে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পরিবার, নজরুল ইনস্টিটিউট, বাংলা একাডেমীর মহাপরিচালক শামসুজ্জামান খানের নেতৃত্বে বাংলা একাডেমী, শিল্পকলা একাডেমী, নজরুল একাডেমি, নজরুল আবৃত্তি পরিষদ, নজরুল সঙ্গীত শিল্পী পরিষদ, গণগ্রন্থাগার অধিদফতর, জাতীয় জাদুঘর, আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউট,জাতীয় গীতিকবি পরিষদ, শামছুন্নাহার হল, রোকেয়া হল, ফজলুল হক মুসলিম হল, প্রত্নতত্ত্ব অধিদফতর, প্রমীলা নজরুল সাংস্কৃতিক গোষ্ঠী, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ, আওয়ামী সেচ্ছাসেবক লীগ, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রী কমিটি, ছাত্রলীগ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা, বাসদসহ রাজধানীর বিভিন্ন সাংস্কৃতিক ও সামাজিক প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে কবির মাজারে শ্রদ্ধা জানায়।

বিএনপির পক্ষে কবির মাজারে শ্রদ্ধা জানান দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আবদুল মঈন খান, ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া ও অন্যান্য নেতা।

কবির দেশপ্রেমের চেতনাকে স্মরণ করে মঈন খান বলেন, ‘‘বিদ্রোহী কবি নজরুল ছিলেন সাম্যের কবি। তাঁর চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে দেশ সেবায় সবাইকে আত্মনিয়োগ করতে হবে। কারণ কবির চেতনা আমাদের দেশপ্রেমে প্রতিনিয়ত উদ্বুদ্ধ করে।’’

আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে কবিকে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন দলটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল-উল-হক হানিফ ও পাটমন্ত্রী আব্দুল লতিফ সিদ্দিকীসহ অন্যান্য নেতা।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের সভাপতিত্বে নেতৃত্বে সকালে শোভাযাত্রাসহ কবির মাজারে যায় শিক্ষার্থীরা। কবির জন্মদিনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে আয়োজন করা হয় এক স্মরণসভার। স্মরণসভায় ভিসি আরেফিন সিদ্দিকের সভাপতিত্বে কবির জীবন ও কমের বিভিন্ন দিক তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন প্রো-ভিসি অধ্যাপক ড. হারুন-অর-রশিদ, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড.মীজানুর রহমান।

কবি নজরুলের নাতনী খিলখিল কাজী বলেন, ‘‘কবি নজরুল সারা দেশবাসী ও বিশ্ববাসীর কাছে সম্পদ। নানা ভাষায় অনুবাদের মাধ্যমে তিনি বিশ্বব্যাপী সমাদৃত। তার চেতনা বাস্তবায়ন করলেই তার বিদেহী আত্মা শান্তি পাবে।’’

নজরুলের সমাধীর পাশে নজরুল কর্নারে একটি মঞ্চ করা হয়। এই মঞ্চে দেশের বিশিষ্ট শিল্পীরা নজরুল সঙ্গীত ও নজরুলের কবিতা আবৃত্তি করেন। বিশ্ব বাঙালী সম্মেলন নামের একটি সংগঠন আলোচনা সভার আয়োজন করে। এতে বক্তব্য রাখেন জাতীয় সংসদের হুইফ আ স ম ফিরোজ, বিটিবির সাবেক মহাপরিচালক কাজী আবু জাফর সিদ্দিকী ও ওয়ার্ল্ড ইউনির্ভাসিটি অব বাংলাদেশের ভিসি অধ্যাপক ড. আব্দুল মান্নান।

বক্তারা বলেন, ‘‘নজরুল আমাদের সাম্যর কথা বলতেন। নজরুলের বাণী ছিল মানবতার জয়গান। বাংলাদেশের যেকোনো আন্দোলনে নজরুলের জাগ্রত চেতনা কাজ করে। তাই বাংলাদেশে স্বাধীনতা বিরোধীদের বিচার শুরু হয়েছে তা সম্পন্ন করতেই হবে। কারণ মানবতার শোষণ ও নিপীড়নকারীদের বিরুদ্ধে কাজী নজরুল সংগ্রাম করে গেছেন।’’

Share this:
Share this page via Facebook Share this page via Twitter

LIKE US on FACEBOOK নিউজ সোর্স b24/মজ / ডেস্ট